আমরণ ইউনিয়ন বাসীর সেবায় নিয়োজিত থাকতে চাই ; হাজী মোহাম্মদ জসীম উদ্দিন আহমেদ

দেবীদ্বার প্রতিনিধিঃ
হাজী মোহাম্মদ জসিম উদ্দিন আহমেদ ,কুমিল্লার জেলার দেবিদ্বার উপজেলার ১৫ নং বরকামতা ইউনিয়ানের বাগমারা গ্রামের কৃতি সন্তান তিনি।

১৯৭৮ সালের ১০ জানুয়ারি আলহাজ্ব মোহাম্মদ ছাদিম আলী ও মনোয়ার বেগম দম্পতির ঘরের ৪ ভাই ২ বোনের মধ্যে দ্বিতীয় সন্তান। তাহার নানা হাজী মোহাম্মদ ঝারু মিয়া দীর্ঘদিন ইউনিয়ন পরিষদ এর সদস্য ছিলেন।রাজ্নৈতিক পরিবারে জন্ম হওয়া জসিম উদ্দিন সেই ঐতিহ্য বয়ে ছাত্র জীবন থেকেই রাজনীতির সাথে জড়িত হয়ে পড়েন , গ্রামের প্রাথমিক বিদ্যালয় থেকে শিক্ষা জীবনে পদার্পন করেন।

১৯৯৩ সালে ছোটনা মডেল উচ্চ বিদ্যালয় থেকে মাধ্যমিক পাশ করে, ১৯৯৬সালে নিমসার জুনাব আলী ডিগ্রি কলেজ থেকে উচ্চ মাধ্যমিক শেষ করে। চান্দিনা রেদোয়ান আহমেদ বিশ্ববিদ্যালয় কলেজ থেকে বি.কম করে জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয় থেকে মাষ্টার’স শেষ করেন।

বঙ্গবন্ধুর আদর্শ হৃদয়ে লালন করে ১৯৯৪ সালে নিমসার জুনাব আলী কলেজ শাখা ছাত্রলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক পদবি বয়ে আনুষ্ঠানিক ভাবে রাজনৈতিক পথ চলা শুরু করেন।পরবর্তীতে ১৯৯৮ সালে বরকামতা ইউনিয়ান ছাত্রলীগ সাধারণ সম্পাদক নির্বাচিত হয়ে আদর্শিক ভাবে ইউনিয়ন বাসীর পাশে থেকে দলের নেতৃত্ব দিতেন , সাংগঠনিক কার্যক্রম পরিচ্ছন্ন হওয়ায় ২০০২ সালে উপজেলা ছাএলীগ এর সহসভাপতি নির্বাচিত হন।বর্তমানে তিনি উপজেলা যুবলীগের অর্থ -বিষয়ক সম্পাদক হিসেবে দায়িত্ত্ব পালন করছেন।
দলের দুঃসময়ে তৎকালীন বিএনপি , জামাত এর মামলা হামলাকে উপেক্ষা করে দলকে সু সংগঠিত করে এগিয়ে যাওয়ায় ২০০৩ দলীয় সমর্থনে ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে ও অংশ নেন তিনি।

হাজী মোহাম্মদ জসিম উদ্দিন আহমেদ বলেন আগামী দিনগুলোতেও আমার ইউনিয়ন বাসির সেবায় নিয়োজিত থেকে সকল প্রকার ভাল কাজে নিজেকে নিয়োজিত রাখবো এবং দলীয় মনোনয়ন ও এলাকাবাসির সমর্থন পেলে আগামী ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে অংশ নিবো।

Leave a Comment