কুমিল্লায় কালবৈশাখীর তান্ডবে লন্ডভন্ড, উপড়ে গেছে বৈদ্যুতিক খুঁটি

স্টাফ রিপোর্টারঃ
কুমিল্লায় কালবৈশাখীতে লন্ডভন্ড হয়ে গেছে ঘরবাড়ি। গাছগাছালি উপড়ে যায়। ফসলের বেশ ক্ষতি হয়েছে। অনেক জায়গায় বৈদ্যুতিক খুঁটি উপড়ে পড়েছে। কোথাও বৈদ্যুতিক তার ছিঁড়ে গেছে। ২৩ এপ্রিল বৃহস্পতিবার বিকেলে এই ঝড় হয়। তবে তাৎক্ষণিকভাবে হতাহতের কোনো খবর পাওয়া যায়নি।

জানা গেছে, বিকেল সাড়ে চারটার দিকে হঠাৎ কুমিল্লার চান্দিনা উপজেলা, দেবীদ্বার, বুড়িচং, ব্রাহ্মণপাড়া ও বরুড়া উপজেলার কিছু এলাকার ওপর দিয়ে কালবৈশাখী বয়ে যায়। এ সময় ঝোড়ো হাওয়া বয়ে যায়। বৃষ্টিও হয়। চান্দিনা উপজেলার এতবারপুর, কামারখোলা, পানিপাড়া, জিরুআইশ, রসুলপুর, বামনিখোলা এলাকায় ঘরবাড়ি লন্ডভন্ড হয় এবং বৈদ্যুতিক খুঁটি ভেঙে যায়। ধানি জমির পাকা ধান নষ্ট হয়। সবজিখেতও নষ্ট হয়ে যায়। এতবারপুর এলাকার বাসিন্দা খোকন চন্দ্র দাসের দুটি ও স্বপন চন্দ্র দাসের একটি ঘর ক্ষতিগ্রস্ত হয়। ঝড়ে গাছ এসে ঘরের ওপর পড়ে। দক্ষিণগ্রাম এলাকার একটি পোলট্রি ফার্মের চাল ধসে পড়ে। বিদ্যুতের লাইন ক্ষতিগ্রস্ত হয়ে তার ছিঁড়ে যায়। দেবীদ্বার উপজেলার বরকামতা, বরুড়া উপজেলার তলাগ্রাম এলাকায় বিদ্যুতের লাইন বিকল হয়ে যায়।

কুমিল্লা পল্লী বিদ্যুৎ সমিতি-১–এর প্রকৌশলী বলেন, ঝড়ে বৈদ্যুতিক লাইন নষ্ট হয়ে গেছে। এগুলোর মেরামত চলছে।

চান্দিনার উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা বলেন, ক্ষতিগ্রস্ত মানুষের তালিকা করে সহায়তা করা হবে।

কুমিল্লা আবহাওয়া অফিসের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা ইসমাইল ভূঁইয়া বলেন, এখন কালবৈশাখীর মৌসুম। বৃষ্টি, দমকা, ঝোড়ো হাওয়াসহ এই ঝড় হয়।

Leave a Comment