জমি মাফিয়ার দৌরাত্ম্যে অতিষ্ঠ পরিবার, তদন্তের নামে পুলিশের বিরুদ্ধে অভিযোগ

প্রসেনজিৎ দাস, আগরতলা; জমির দালালদের যন্ত্রনায় অতিষ্ঠ এক পরিবার। যেখানে ত্রিপুরার বর্তমান সরকার দূর্নীতিমুক্ত সমাজ গড়ার লক্ষ্যে ধারাবাহিক ভাবে কাজ করার অঙিকার নিয়েছে। সেখানে একটা অংশ সরকারের সুস্থ মানষিকতাকে কালিমালিপ্ত করতে উঠে পরে লেগেছে। ঘটনা রাজধানী আগরতলার এ ডি নগর এলাকার ৬ নম্বর রোডের। এখানে জনৈক বরুন দাস নামের ব্যক্তি যথাযথ সরকারী নিয়ম কানুনের মধ্যে থেকে একটি জায়গা ক্রয় করেন। খালি জায়গায় নিজের স্বপ্নের ঘর তৈরী করার উদ্যোগও নেন। কিন্তু এই স্বপ্নে বাধা দিতে চলে আসে একটা অংশের জমি দালাল চক্র। রীতিমতো নিজের টাকায় কেনা জায়গায় ঘর বানাতে নানা সমস্যার সৃষ্টি করা হচ্ছে। সংবাদ মাধ্যমের সামনে এমনই অভিযোগ করেন বরুণ দাস। অভিযোগ এলাকারই কয়েকজন দুস্কৃতীদের বিরুদ্ধে। অভিযুক্তরা হলো দীপেশ দাস, লিটু মজুমদার, প্রসেনজিৎ গোপ সহ আরো তিনজন। তাদের বিরুদ্ধে সুস্পষ্ট লিখিত মামলা করা হলেও পুলিশ কেন কোন ব্যবস্থা নিচ্ছে না তা নিয়েই বাড়ছে জল্পনা। অভিযোগ, পুলিশ আবার এঘটনাকে ধামাচাপা দিতে কোন ব্লু-প্রিন্ট তৈরী করছে নাতো? কেননা, অভিযুক্তদের বিরুদ্ধে পুলিশ মহানির্দেশকের কাছেও লিখিত অভিযোগ দায়ের করা হয়েছে। তাহলে কেন কোন পদক্ষেপ নিচ্ছে না প্রশাসন এটাই লাখ টাকার প্রশ্ন? কিভাবে পুলিশ নিজেদের অকর্মন্যতার জন্য সরকারের সুস্থ মানষিকতাকে কালিমালিপ্ত করছে তা নিয়েই জল্পনা বিভিন্ন মহলে। কেন সঠিক ভাবে আইন করছে না আইনের কাজ তা জানতে চায় রাজ্যবাসী।

Leave a Comment